দেশবাসীকে ঈদুল আজহার শুভেচ্ছা জানিয়েছেন ওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। সাথে তিনি মন্তব্য করেছেন, ঈর্ষান্বিত হয়ে একটি মতলবি মহল সরকার ও জনগণের দুর্ভেদ্য ঐক্যের দুর্গে ফাটল ধরানোর অপচেষ্টা করছে।

তারা নিজেদের ব্যর্থতা ঢাকতেই এ ধরনের কূটচাল দিয়ে আসছে। রোবাবার (২ আগস্ট) সকালে ধানমন্ডি-৩২ নম্বরে বঙ্গবন্ধু জাদুঘর চত্বরে জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে বাংলাদেশ কৃষক লীগের এক অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন। ঈদের শুভেচ্ছা বার্তায় ওবায়দুল কাদের বলেন,

ঈদের শক্তি হোক জীবনযুদ্ধে ঘুরে দাঁড়ানোর প্রবল প্রত্যয়। এটাই আজকের প্রত্যাশা।’ পরে তিনি বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ইতোমধ্যেই আশ্বস্ত করেছেন বন্যা দুর্গত মানুষের দুর্ভোগ মোকাবিলায় তার সরকারের যথেষ্ট বরাদ্দ রয়েছে।

পাশাপাশি সরকার দুর্যোগ-পরবর্তী পুনর্বাসন কর্মসূচি গ্রহণ করেছে এবং কোনো মানুষ না খেয়ে থাকবে না। বঙ্গবন্ধুকন্যা ঝুঁকি এড়িয়ে স্বাস্থ্যবিধি মেনে স্থানীয় প্রশাসনের সঙ্গে আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীদের বন্যা দুর্গত মানুষের পাশে দাঁড়ানো

এবং ত্রাণ কার্যক্রম অব্যাহত রাখার নির্দেশ প্রদান করেছেন।’ তিনি বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকার যখন সকল প্রতিকূলতা ও সীমাবদ্ধতার সূত্রকে জয় করে মহাদুর্যোগের এই সময়ে জনগণের জন্য একের পর এক কার্যকরী পদক্ষেপ গ্রহণ করছেন এবং

তার নির্দেশনায় বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ ও তার সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা নিজেদের জীবন বাজি রেখে মানুষের কল্যাণে কাজ করে যাচ্ছেন তখন মিডিয়ার কল্যাণে টিকে থাকা একটি দল বিএনপির নেতারা সরকারের সমালোচনায় লিপ্ত হয়েছেন।’