করোনাকালে বাধ্য হয়ে ক্রিকেটের সঙ্গে আঁড়ি পেতেছেন ক্রিকেটাররা। ফাঁকা এই সময়ে জীবনের ইনিংসে পা বাড়িয়েছেন অনেকে। পছন্দের মানুষকে করেছেন জীবনসঙ্গিনী।

শেষ একমাসে বিয়ের ধুম পড়ে গেছে ক্রিকেটারদের। মোসাদ্দেক হোসেন, আবু জায়েদ রাহী, নাজমুল হোসেন শান্ত, সাদমান ইসলাম ও মেহেদী হাসান বিয়ের পিঁড়িতে বসেছেন। প্রত্যেকেরই বিয়ের পর প্রথম ঈদ। কেমন কাটল সাংসারিক জীবনের প্রথম ঈদ?

নাজমুল হোসেন শান্ত

গত মাসের মাঝামাঝিতে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন দেশের উদীয়মান ক্রিকেটার নাজমুল হোসেন শান্ত। স্ত্রীর নাম সাবরিন সুলতানা রত্না। রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে পরিসংখ্যানে তৃতীয় বর্ষে পড়ছেন সাবরিনা। ছোট্ট পারিবারিক আয়োজনে সম্পন্ন হয়েছে তাদের আনুষ্ঠানিকতা।

চার বছর প্রেমের পর বিয়ে করেছেন শান্ত-রত্না। নতুন দম্পতির বিয়ে নিয়ে অনেক পরিকল্পনা থাকলেও সেসব হয়নি। ঈদেও বিশেষ কিছু করছেন না দুইজন। শান্ত বলেন,‘ইচ্ছে ছিল ঈদের পর স্ত্রীকে নিয়ে কোথায় ঘুরতে যাবো।

কিন্তু সেটা সম্ভব হচ্ছে না। এখন পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে দিন কাটছে। বিয়ের পর প্রথম ঈদ কিছুটা হলেও স্পেশাল। আগে বাইরে দেখা করতে হতো এবং আমরা একসঙ্গে থাকছি এটা তো অনেক আনন্দের।

মোসাদ্দেক হোসেন

দ্বিতীয়বারের মতো বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হয়েছেন জাতীয় দলের ক্রিকেটার মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত। গত ১২ জুলাই ময়মনসিংহে পারিবারিকভাবে ঘরোয়া পরিবেশে সম্পন্ন হয় মোসাদ্দেকের বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা। মোসাদ্দেকের স্ত্রীর নাম উম্মে তামান্না।

তার বাড়ি ময়মনসিংহ শহরের তালতলায়। প্রথম বিয়ে নিয়ে বেশ ঝামেলা পোহাতে হয় মোসাদ্দেক হোসেনকে। যৌতুকের কারণে নির্যাতন করার অভিযোগে ২০১৮ সালে মোসাদ্দেক ও তার মায়ের বিরুদ্ধে মামলা করেন তার প্রথম স্ত্রী সামিরা।

সেসব ঝামেলা শেষ করে দ্বিতীয়বার গাঁটছাড়া বাধলেন মোসদ্দেক। নতুন সংসারের প্রথম ঈদ নিয়ে মোসাদ্দেক বলেন,‘বেশ আনন্দে দিন কাটছে। এখন সারাদিন ঘরেই থাকি। ঈদের নামাজ পরে বাসায় ছিলাম। পশু কোরবানি দিয়েছি। এরপর বাসায় খাওয়া-দাওয়া। বউকে নিয়ে একটু বের হওয়ার কথা আছে রাতে।’

সাদমান ইসলাম

নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রী নাশা ওয়াহেদকে বিয়ে করেছেন জাতীয় দলের হয়ে ৬ টেস্ট খেলা সাদমান ইসলাম। সাদমানের জন্য ঈদুল আজহা প্রচন্ড ব্যস্ততার। তাদের রয়েছে পারিবারিক গরুর খামার। গরু বিক্রি নিয়ে ব্যস্ততার ফাঁকে বিয়ে করেছেন। তাই বউকে সময় দেওয়া হয়নি।

তাই ঈদের দিনটি পুরোটাই নতুন বউয়ের জন্য রেখে দিয়েছেন সাদমান। তাকে ঘিরেই আজ সারাটা দিন কাটিয়েছেন। ঈদের পর নির্জন কোথাও বেড়াতে যাওয়ার পরিকল্পনা তাদের। সেই দিনগুলোর অপেক্ষাতে নব দম্পতি।

মেহেদী হাসান

ঈদের কয়েকদিন আগেই বিয়ের পিঁড়িতে বসেছেন জাতীয় দলের হয়ে চার ম্যাচ খেলা মেহেদী হাসান। প্রথম বিবাহিত জীবনে ঈদ পেয়েছেন, নতুন এই জীবন ভালোই উপভোগ করছেন তিনি। পাশাপাশি অনেক দায়িত্বও বেড়েছে বলে মনে করেন তরুণ এই ক্রিকেটার।

তার ভাষ্যে,‘এটা বুঝতে পারছি, বিয়ের আগের জীবন আর বিয়ের পরের জীবন এক না। এখন অনেক বেশী দায়িত্ব বেড়েছে, দায়িত্ব আরও বাড়বে। যদিও আমি এখনও পুরোপুরি সেসব দায়িত্ব নিয়ে পারিনি। তবে সেটা নিতেই হবে।’

বিয়ের পরে এখনও শশুরবাড়ি যাওয়া হয়নি মেহেদীর। মেহেদীর শ্বশুড়বাড়ি মাশরাফি বিন মুর্তজার শহর নড়াইলে। আগামীকাল (২ আগস্ট) সেখানে তার দাওয়াত। তার শশুর বাড়ির আত্মীয়রা তাকে এবং তার স্ত্রীকে নিতে আসবেন। তবে যাবেন কি না, এখনও নিশ্চিত না মেহেদী।

আবু জায়েদ রাহী

পেসার রাহী তৌহিদা আক্তার জুহার সঙ্গে জীবনের দ্বিতীয় ইনিংস শুরু করেছেন। তার স্ত্রী পেশায় চিকিৎসক। দুইজনের বাড়ি সিলেটে। বিয়ের পর প্রথম ঈদ নিয়ে রাহীর বেশ উচ্ছাস। ‘আমার খুব ভালো লাগছে। বিয়ের পর প্রথম ঈদ। করোনার সময়ে আমাদের বিয়ে হয়েছে।

ধুমধাম করা হয়নি। তবে আমরা দুইজন একসঙ্গে আছি এটার জন্য শুকরিয়া। সারাদিন বাসায় ছিলাম। বউকে সময় দিচ্ছি। কথা বলছি। একটু বেরও হবো। সব মিলিয়ে প্রথম অভিজ্ঞতা দারুণ। আমার বউও খুশি।’